1. admin@dainikprothomprohor.com : admin : News Desk
পাথরঘাটায় রাতের আধাঁরে জোর পূর্বক অন্যের জমিতে খাল খনন - দৈনিক প্রথম প্রহর
মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ০৫:৩৭ অপরাহ্ন

পাথরঘাটায় রাতের আধাঁরে জোর পূর্বক অন্যের জমিতে খাল খনন

  • প্রকাশিত: রবিবার, ২৩ এপ্রিল, ২০২৩

বরগুনার পাথরঘাটায় শতাধিক নারী-পুরুষ নিয়ে রাতের আধাঁরে জোর পূর্বক জমি দখল করে সরজমিনে খাল কাটার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে পাথরঘাটা উপজেলার নাচনাপাড়া ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ড জ্ঞানপাড়া গ্রামে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়,জ্ঞানপাড়া গ্রামের আব্দুর সত্তার সহ বেশ কয়েকজন এর জমি,একই এলাকার বাসিন্দা ইছহাক মৃধার নেত্রীত্বে রাতের আধারে এই খাল কাটেন।

আব্দুর সত্তার বলেন,এই জমি আমরা ক্রয় কৃত,প্রায় ৩০ বছর যাবৎ ভোগ দখল করে আসছি। গত বছর থেকে জমিতে চাষাবাদ করতে গেলে তারা আমাদের মারধর করে, জোর পূর্বক জমি দখলের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। কোন উপায়ান্তু না পেয়ে বরগুনা জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলা দায়ের করি। মহামান্য আদালত জমিতে নিষেধাজ্ঞা জারি করলেও ইসহাক মৃধারা জোরপূর্বক আমাদের জমি দখল করতে চায়।

একই জমির অন্য আংশিদার সিদ্দিক বলেন,আমাদের জমির সাথে তাদের জমির কোন মিল নেই আমরা ৪ নং সিটে তারা ৫ নং সিটে পুরো ভিন্ন জমি। তারপরেও তারা জোর করে আমাদের জমি ভোগদখল এর চেষ্টা চালাচ্ছে, আমারা জমিতে হাল চাষ করতে পারিনা, হালচাষের জন্য গেলে তারা লাঠি সোটা সহ দেশীয় অস্ত্র নিয়ে আমাদের উপর যাপিয়ে পরে। তারা অত্যন্ত খারাপ প্রকৃতির লোক তাদের ভয়ে আমরা রাতে ঘুমাতেও পারি না।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত ইছহাক মৃধা বলেন,এটা সম্পূর্ণ মিথ্যা অভিযোগ আমারা আমাদের জমিতে মাটি কেটেছি, তাদের সম্পত্তি তাদের বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে, তাদের জমি আমাদের মাটি কাটার পর থেকে।

নাচনাপাড়া ইউপি চেয়ারম্যান মো. ফরিদ খান বলেন, আব্দুস সাত্তার গং ও ইসহাক মৃধা গং দের জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধের বিষয়টি বিগত এক বছর যাবত চলে আসছে উভয় পক্ষকে নিয়ে কয়েক বার সালিশ বৈঠকে বসেছি তবে বর্তমানে আব্দুস সাত্তার গং মামলা করেছে। আদালতের সিদ্ধান্ত মোতাবেক দুই গ্রুপের মাঝে জমি ফয়সালা করা হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
কপিরাইট © ২০২২ দৈনিক প্রথম প্রহর. কম
ডিজাইন ও ডেভেলপ : ডিজিটাল এয়ার